Advertisements

মালয়েশিয়া রিক্রুটিং এজেন্সির তালিকা

Advertisements
3.7/5 - (9 votes)

মালয়েশিয়া রিক্রুটিং এজেন্সির তালিকা

আসসালামুয়ালিকুম বন্ধুরা আপনারা কেমন আছেন আশা করছি আপনারা প্রত্যেকেই ভাল আছেন ও সুস্থ আছেন। বন্ধুরা আমাদের বাংলাদেশের অর্থনৈতিক পরিকাঠামোকে চাঙ্গা করতে এবং প্রত্যেক পরিবারকে সুদূর উজ্জ্বল ভবিষ্যতের দিকে এগিয়ে নিয়ে যেতে বহু বাংলাদেশী ভাই-বোনেরা মালয়েশিয়ার মত উন্নত দেশগুলিতে চাকরি বা কোন কাজের সূত্রে গিয়ে থাকেন। আর যে সমস্ত ভাই বোনেরা মালয়েশিয়ার ভিসা এখনো পাননি অথচ মালয়েশিয়া যাওয়ার জন্য অত্যন্ত আগ্রহী তাদের জন্য আরও একটি সুখবর রয়েছে। আর তা হল মালয়েশিয়া সরকার নতুন করে ঢাকার আরো ৫০টি রিক্রুটিং এজেন্সিকে শ্রমিক প্রেরণার জন্য অনুমোদন দিতে নীতিগত সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

ইতিমধ্যেই বাছাই করা রিক্রুটিং এজেন্সির নামের তালিকাটি অর্থাৎ খসড়া প্রবাসী কল্যাণ মন্ত্রণালয় ছাড়াও জনশক্তি বক্সার সাথে জড়িতদের অনেকের হাতেই পৌঁছে গেছে। খবর সূত্রে জানা যায় মালয়েশিয়া সরকার এখনো পর্যন্ত দেশগুলো থেকে কর্মী আমদানির জন্য ৪ লাখ কর্মীর নামে চাহিদা পত্র অর্থাৎ অ্যাপ্রুভাল দিয়েছে। এরই মাঝে একটি দুঃখের খবর হল এই চাহিদার অনেকটা পরিমাণ ডিমান্ড নেপালেই চলে গেছে। আর সেই সংখ্যা প্রায় 2 লক্ষের কাছাকাছি। বাকি দুই থেকে এক লাখ চলে এসেছে বাংলাদেশে। এছাড়াও অন্য এক লাখের মধ্যে রয়েছে ভারত পাকিস্তান ইন্দোনেশিয়া মায়ানমারের প্রায় অর্ধলক্ষ শ্রমিকের চাহিদা পত্র সিস্টেম থেকে চলে গেছে। এখনো বাকি যে চাহিদা পত্র গুলো রয়েছে এর জন্য আমাদের বাংলাদেশী কয়েকশো ব্যবসায়ী সেগুলো কিনতে এখন কুয়ালালামপুরে অবস্থান করছেন। তাদের কারণে ইতিমধ্যে কয়েকটি কাজের চাহিদা পত্রের দাম উঠেছে ৫০০০ রিঙ্গিতের বেশি। তো বন্ধুরা আপনারা যদি মালয়েশিয়া রিক্রুটিং এজেন্সির তালিকায় কোন কোন এজেন্সিগুলি রয়েছে সে সম্পর্কে বিস্তারিতভাবে আরো জানতে চান তাহলে অতি অবশ্যই আমাদের নিচে দেওয়া লিঙ্কের পিডিএফ/PDF টি ডাউনলোড করে নিবেন।

মালয়েশিয়া রিক্রুটিং এজেন্সির পিডিএফ/PDF

তবে এ ক্ষেত্রে আরো বলা যায় যে আমাদের বাংলাদেশ হাইকমিশন থেকে চাহিদা পত্র যাচাই বাছাইয়ে যে সময় লাগছে সেই সুযোগটি কাজে লাগাচ্ছে নেপাল এম্বাসি। নেপালের এদেশে থাকা হাইকমিশন কোম্পানি ভিজিট করে দ্রুত কর্মীদের সত্যায়ন করায় তাদের শ্রমিক দ্রুত মালয়েশিয়াতে কাজের সূত্রে চলে যেতে পারছে। তবে আমাদের বাংলাদেশের এম্বেসির লোকজন এক্ষেত্রে খুবই ধীরগতি সম্পন্ন বলে জানা যায়।

এখনো পর্যন্ত মালয়েশিয়াতে হিসেব করে দেখা যায় আগের ২৫ এবং এখন এর ৫০ অর্থাৎ ২৫+৫০=৭৫ টি রিক্রুটিং এজেন্সি এখন কাজ করার সুযোগ পাচ্ছে। তাদের সাথে সাব এজেন্ট হিসাবে আরো সহস্রাধিক রিক্রুটিং এজেন্সির মালিক কে কর্মী পাঠানোর জন্য এনলিস্ট করতে পারে। তবে এখনো পর্যন্ত দুঃসংবাদটি হল ভালো ভালো কাজ নেপালে চলে গিয়েছে। এখন যেগুলো ডিমান্ড রয়েছে সেই কাজগুলোর মান খুব ভালো নাও হতে পারে।

দীর্ঘদিন মালয়েশিয়ায় শ্রমিক পাঠানো বন্ধ থাকার পর কূটনৈতিক তৎপরতার পাশাপাশি প্রবাসী কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের প্রচেষ্টায় সম্প্রতি শ্রমবাজারটি উন্মুক্ত হয়েছে। তবে শ্রমিক প্রেরণে মালয়েশিয়া সরকার নির্দিষ্ট ২৫ টি এজেন্সির নাম চূড়ান্ত করার পর শুরু হয় বক্সাইট এর মধ্যে তীব্র প্রতিবাদ। প্রায় একদিক থেকে মালয়েশিয়া সরকার অনেকটা চাপের মুখে পড়ে আরো 50 টি এজেন্সিকে নতুন করে তালিকাভুক্ত করার সিদ্ধান্ত নেয়। এই মুহূর্তে এজেন্সির সংখ্যা বাড়ায় অভিবাসন ব্যয় কমে আসতে পারে। শোনা যাচ্ছে এই তালিকার বাইরে আরো ২৫ টি যোগ করে মোট ১০০টি রিক্রুটিং এজেন্সির নাম মালয়েশিয়া সরকার চূড়ান্ত করার কথা ভাবছে।

এসব এজেন্সি মালয়েশিয়া থেকে ব্যবসা কিনে অন্যান্য এজেন্সিকে পড়ে বন্টন করে দেয়। এক্ষেত্রে বাকি এজেন্সি মালিক শুধু ওই ১০০ এজেন্সিকে প্রসেসিং খরচ বাবদ একটি নির্ধারিত ফ্রি দিতে হয়।

এর আগে বাইড়ায় একাধিক সদস্যর সাথে যোগাযোগ করা হলে তারা ৫০ টি তালিকার বিষয়ে কোনো মতামত দিতে পারেনি। তারা মনে করছেন এই তালিকা থেকে কোন নাম যদিও বাদ পড়তেও পারে। তবে চূড়ান্ত তালিকা প্রকাশের আগে পর্যন্ত সবাইকে অপেক্ষা করতে হবে। কোন 50 টি এজেন্সি নতুন করে শ্রম বাজারে কর্মী প্রেরণে অন্তর্ভুক্ত হতে চলেছে।

তো বন্ধুরা আমরা আশা করব আপনারা মালয়েশিয়া রিক্রুটিং এজেন্সি সম্পর্কিত উপরিউক্ত কনটেন্টটি পড়ে অনেক উপকৃত হয়েছেন। এবং মালয়েশিয়া রিক্রুটিং এজেন্সির বিষয়ে অনেকটা গভীরে বিস্তারিত জ্ঞান অর্জন করেছেন। এছাড়াও বন্ধুরা আপনারা যদি এই ধরনের রিক্রুমমেন্ট রিলেটেড কনটেন্ট আরো পেতে চান তাহলে অতি অবশ্যই আমাদের ওয়েবসাইটের সাথে সদা সর্বদা জুড়ে থাকবেন।

অন্যদিকে আপনারা যদি মালয়েশিয়া সহ বিভিন্ন দেশের টাকার মূল্য বাংলাদেশি টাকায় কত সে সম্পর্কে জানতে চান এবং প্রত্যেকদিনের সোনার মূল্যের আপডেট সঠিকভাবে সবার আগে পেতে চান তাহলে অতি অবশ্যই আমাদের ওয়েবসাইট আবারও ভিজিট করবেন। আমাদের ওয়েবসাইট ভিজিট করার জন্য আপনাকে অসংখ্য অসংখ্য ধন্যবাদ। 🙏

মালয়েশিয়া রিক্রুটিং এজেন্সির তালিকায় আরো নতুন কয়টি এজেন্সি যোগ হতে চলেছে?

মালয়েশিয়া রিক্রুটিং এজেন্সির তালিকায় নতুন করে আরো ৫০টি এজেন্সি যোগ হতে চলেছে।

শ্রমিক প্রেরণের জন্য মালয়েশিয়া সরকার কয়টি এজেন্সির তালিকা চূড়ান্ত করার সিদ্ধান্ত নিয়েছিল?

শ্রমিক প্রেরণের জন্য মালয়েশিয়া সরকার মোট এর আগে ২৫টি এজেন্সির তালিকা চূড়ান্ত করার সিদ্ধান্ত নিয়েছিল।

মালয়েশিয়া রিক্রুটিং এজেন্সির তালিকা বৃদ্ধির পিছনে প্রধান কারণ কি?

শ্রমিক প্রেরণে মালয়েশিয়া সরকার নির্দিষ্ট ২৫ টি এজেন্সির নাম চূড়ান্ত করার পর শুরু হয় বক্সাইট এর মধ্যে তীব্র প্রতিবাদ। প্রায় একদিক থেকে মালয়েশিয়া সরকার অনেকটা চাপের মুখে পড়ে আরো 50 টি এজেন্সিকে নতুন করে তালিকাভুক্ত করার সিদ্ধান্ত নেয়।

মালয়েশিয়া থেকে মোট কতটা পরিমান রিক্রুটমেন্টের চাহিদা বাংলাদেশের জন্য বরাদ্দ হয়েছে।?

মালয়েশিয়া সরকার বাংলাদেশ থেকে কর্মী আমদানির জন্য এখনো পর্যন্ত মোট ১ লক্ষ্য কর্মীর চাহিদা প্রকাশ করেছে।

মালয়েশিয়া সরকার মোট কত লক্ষ কর্মীর চাহিদা প্রকাশ করেছে?

এখনো পর্যন্ত মালয়েশিয়া সরকার মোট ৪ লক্ষ্য কর্মীর চাহিদা প্রকাশ করেছে।

Related Posts